শ্রীরাম কী হরিণ শিকার করত। What is Golden Deer Story In Ramayana

Golden Deer Story in Ramayana

আজকাল সমস্ত মুসলিম জাতি আর কিছু কমিউনিস্ট দের বক্তব্য এই যে - শ্রীরাম শিকার করত। প্রতিদিন শিকার করতে যেত। মৌলানা জগদিশ আন্সারি তো এও বলে দিয়েছে যে শ্রীরাম প্রতিদিন শিকার করতে যেত। আর মাছ ,মাংস খেত। উপরের এই বিষয় টি আজ www.sanatanblog.com প্রমান করে দিবে যে শ্রীরাম শিকার করত কি করত না।  শ্রীরাম কী মাংস খেত - জানুন সত্য

শ্রীরাম কী হরিণ শিকার করত।
শ্রীরাম কী হরিণ শিকার করত।

এই অংশটি রামায়নের অরণ্য কাণ্ড থেকে নেওয়া হয়েছে। যখন সুপর্ণাখা শ্রীরাম কে বিয়ে করার জন্য বার বার বলছিল। আর যখন শ্রীরাম মানা করে দিলে স্ত্রী সীতা আর ভাই লক্ষণ কে মারার জন্য জায়।তখন শ্রীরাম এর আজ্ঞা তে লক্ষণ সুপর্ণাখা এর নাক আর কান কেটে দেয়। কারন সেই সময় মহিলাদের মারা যেত না। তখন সুপর্ণাখা সমস্ত ঘটনা তার ভাই খর আর দূষণ কে সব বলে দেয়। তায় শ্রীরাম সীতা আর লক্ষণ কে বন্দি করার জন্য আদেশ দিয়ে সমস্ত অস্ত্র আর কবচ ধারন করে যুদ্ধ করতে যায়। আর যুদ্ধে শ্রীরাম দেখতে দেখতে কিছু ঘণ্টার মধ্যে ১৪,০০০ সৈনিক কে হত্যা করে।



Why Killed Shri Ram Golden Deer in Ramayana?

এই সমস্ত ঘটনা শাসক কম্পন দেখে এবং রাবণ কে সমস্ত কিছু বলে , রাবণ সমস্ত কিছু শুনে শ্রীরাম এর সঙ্গে যুদ্ধ আর সীতা কে হরণ করার জন্য ক্ষেপে যায়। আর মারীজ এর সাহায্যে পঞ্চবতী পৌছে যায়। মারীজ এর বিশয়ে এক কথা শোনা যায় যে সে হরিণ এর সোনাময়ী চামড়া ( Golden deer Skin) পরে নিত আর হরিণ এর মতো (Golden deer language)  কথা বলত। মারীজ কে দেখে মানে তার গায়ে সোনাময়ী চামড়া দেখে মা সীতা আশ্চর্য হয়ে গিয়েছিল। এবং শ্রীরাম আর লক্ষণ কে এই বলে ডাকে; তোমরা তোমাদের অস্ত্র শস্ত্র নিয়ে আস। এই এই হরিণ এর আমাদের নিরক্ষণ পরিক্ষণ করা দরকার। যখন শ্রীরাম হরিণ কে দেখে তখন লক্ষণ বলে " এটা নিশ্চিত মারীজ আছে যে সোনাময়ী হরিণ এর চামড়া ধারন করে নিতে পারে এবং হরিণ এর মতো কথা বলতে পারে, এই সংসার এ এমন কেও নেই যে হরিণ এর বেশ ধারণ করতে পারে" তখন শ্রীরাম বলে যদি এটা মারীজ হয় তাহলে আমি নিশ্চিত একে মেরে ফেলব। আর যদি মারীজ না হয় তাহলে আমি তাকে ধরে এখানে নিয়ে আসব। যদি রাম শিকারী হত তাহলে এই হরিণ এর শিকার করত। যদি রাম প্রতিদিন শিকার করত তো এই মারীজ নাম এর সোনাময়ী হরিণ এর কিছু না ভেবে শিকার করত।



রামায়ন এ অনেক বেশি ভেজাল মেশানো হয়েছে। আজ হিন্দুদের দ্বারা এটা প্রচার করা হয় যে মারীজ সোনাময়ী হরিণ এর রুপ নিতে পারত। আর রামায়ন এ লক্ষণ বলে এই সংসার এ এমন কিছু নেই যে সৃষ্টির বীপরিত এ হতে পারে। শ্রীরাম মারীজ কে দেখে তীর ছারে এবং তার কৃত্রিম চামড়া তে লাগে যার জন্য মারীজ তার কৃত্রিম চামড়া শরীর থেকে খুলে ফেলে। তায় বোঝা যায় রামায়ন এ শ্রীরাম প্রতিদিন শিকার করত না আর মাংস খেত না। এই সব কথা কাল্পনিক। যেগুলোর জন্ম টিভি, সিরিয়াল, কাল্পনিক বই থেকে হয়েছে। আর আমরা তো বাল্মিকি এর সুদ্ধ রামায়ন পরি না, টিভি , সিরিয়াল , নাটক এ যা দেখি তাই বিশ্বাস করি। আমরা কখন বিচার দিয়ে বিবেচনা করে দেখি না।আর আমরা যা দেখি সেইগুলো প্রচার করি।

বন্ধুরা এই পোস্ট টা যতটা পারবে শেয়ার করো। সমস্ত হিন্দুকে শেয়ার করে জানিয়ে দাও।। জয় শ্রী রাম।।
Previous
Next Post »