বিভিন্ন মেয়েলি রোগের ঘরোয়া প্রাকৃতিক চিকিৎসা

বিভিন্ন মেয়েলি রোগের ঘরোয়া প্রাকৃতিক চিকিৎসা girls health problem

বিভিন্ন মেয়েলি রোগের ঘরোয়া প্রাকৃতিক চিকিৎসা
বিভিন্ন মেয়েলি রোগের ঘরোয়া প্রাকৃতিক চিকিৎসা

কম বয়সী মেয়েদের সাদা স্রাব হলে : 

আধ চামচ চিনি, আধ চামচ বট পাতা গুঁড়াে ও এক চামচ অশােক ছাল
একবার করে খাওয়ান।

আদ চামচ মৌরী, আধ চামচ জোয়ান ও দশটি নিমপাতা জলে ফুটিয়ে সেই জল দিয়ে যােনি ধোয়ান।

চারটি ডালিম ফুল বেটে একচামচ আখের গুড় ও আধ চামচ সাদা চন্দন গুঁড়াে এক কাপ দুধ দিয়ে খাওয়ান।

অতিরিক্ত সাদা স্রাব হলে এক গ্রাম যজ্ঞ ডুমুরের ছাল ও দুই গ্রাম শিমূল ছাল গুড়াে ভিজিয়ে সেই জল দিনে একবার খাওয়ান।

মাসিকের সময় পেটে ব্যথা ও ঠিকমতাে স্রাব না হলে ? 

অশােক ছাল আধ চামচ, সহদেবী আধচামচ জলে সিদ্ধ করে একদিন অন্তর খাওয়ান।

চার চামচ উচ্ছে পাতার রস গরম জল দিয়ে খাওয়ান।

এক গ্রাম হরিতকী গুড়াে, গরম জলে ভিজিয়ে রাত্রে শােবার আগে খাওয়ান।

আধ চামচ মেহেন্দি ও আধ চামচ ওলট কম্বােল ও পাঁচটা লবঙ্গ গরম জলে দিয়ে খেলে কোমরের ব্যথাতে বিশেষ উপকার হয়।

অতিরিক্ত ঋতু স্রাব হলেঃ 

চারটে জবা ফুল ও একটা লাল পদ্ম বেটে বড়ি তৈরী করে খাওয়ান।

এক চামচ ভৃঙ্গরাজ এক কাপ দুধ দিয়ে দু’বার খাওয়ান।

এক গ্রাম ভূঁইকুমড়াে ও এক চামচ রক্ত চন্দন বাটা এক কাপ দুধ দিয়ে খাওয়ান।

অশােকছাল গুড়াে এক চামচ, ষষ্ঠি মধু এক চামচ জল দিয়ে ফুটিয়ে খাওয়ান।

যােনিতে চুলকানি হলেঃ

আধ চামচ করে অশ্বথ ও অশােক ছাল এবং নিশিন্দা জলে ফুটিয়ে তাতে যােনি ধােওয়ান।

আধ চামচ কুল গুঁড়াে ও এক চামচ আখের গুড় দিনে দুইবার জল দিয়ে খাওয়ান।

যােনিতে বৃহতী ফলের রস লাগান।

নিমপাতা বেটে যােনিতে প্রলেপ দিলে এই রােগ সেরে যায়।

জল ফুটিয়ে ঐ জলে অল্প ফিটকিরি মিশিয়ে যােনি ধােওয়ান।

রােগাটে চেহারায় মাসিক ঠিক মতাে হয় না ও চার চামচ থানকুনি পাতার রস ও এক গ্লাস দুধ দিনে একবার করে খাওয়া উচিত।

মৈথুনের সময় বুকে ব্যথা ও যােনিতে যন্ত্রণা হলে ঃ

চার চামচ ওলােট কম্বল ও চারটে বাতাসা এক বার করে খাওয়ান।

মিলনের সময় যৌনবােধ না হলে ঃ

এক গ্রাম কাঁচা সুপারি ও এক গ্লাস দুধ প্রতিদিন খাওয়ান।

মিলনে বিরক্তিভাব ঃ

আধ চামচ করে অশােক, নিশিন্দা ও কুড় জলে দিয়ে খাওয়ান।

মৈথুনের পরেই মানসিক ও শারীরিক ভাবে ঝিমিয়ে গেলেঃ

একশত গ্রাম শসা বাটার সাথে মিছরি ও কপূর দিয়ে শরবত করে খাওয়ান।

প্রতিমাসে ঋতু বন্ধ হবার পরই প্রচণ্ড সেক্সি হয় ও মেজাজ খিটখিট থাকেঃ 

আধ চামচ জটামাংসী গুঁড়াে ঘি দিয়ে খাওয়ান।

বুকে দুধ কম থাকলেঃ

চারটি পলতে মাদার পাতার রস ও নারকেল বাটা এক চামচ মিশিয়ে দিনে একবার খাওয়ান।

আধ চামচ করে মৌরী, আমলকী, নিশিন্দা জলে ফুটিয়ে দিনে একবার খাওয়ান।

স্তন ঝুলে পড়লেঃ

ও প্রচণ্ড ব্যথা হলে ও এক চামচ পরিমাণ হলুদ, ধুতরা পাতা, আমলকী, আম আঠা গরম করে স্তনে লাগানাে উচিত।

স্তনের বোঁটা ফাটা ও চুলকানিঃ

এক চামচ করে কুলগুড়াে ও গাভীর বার খাওয়া।

ছােট স্তনকে বড় করবার জন্যঃ

সমপরিমাণ আমলকী, গাম্ভীর, লজ্জাবতী ও তিল তেল দয়ে ফুটিয়ে ঐ তেল দিয়ে মালিশ করা।

স্তন অতিরিক্ত বড় হলে কমাবার জন্যঃ

সমপরিমাণ কুল ও মুসুর ডাল বাটা স্তনে আধ ঘন্টা লাগিয়ে রাখা।

স্তনের গঠন ঠিক রাখতেঃ

আধ চামচ কুড় ও গম্ভীর এবং দুই চামচ শতমূলী দিনে একবার জল দিয়ে খাওয়ান।

স্তনের ঠুনকো ঃ

স্তনে প্রচণ্ড ব্যথা হয় ও ফুলে ওঠে। ধুতরা পাতা ও হলুদ একত্রে বেটে প্রলেপ দিলে সেরে যায়।

সুডৌল স্তন তৈরি করতে ঃ

পর পর সাতদিন শােয়ার আগে বেদানার খােসা বেটে প্রলেপ দিলে শিথিল স্তন দৃঢ় ও আকর্ষণীয় হয়।

কোমরে ব্যথাঃ

ঋতুকালে প্রায়ই হয়। দশগ্রাম কমলালেবুর খােসা, দুই গ্রাম করে হিং ও গােলমরিচ চূর্ণ করে তার সাথে পঞ্চাশ গ্রাম কালাে তিল ভাজা দিয়ে পাচন করে সাত দিন খেলে সেরে যাবে।

তারপিন তেল ও তিল তেল মিশিয়ে কোমরে মালিশ করলেও ব্যথা চলে যায়।

girls health problem

Previous
Next Post »